আজ সোমবার ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৫ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম:
প্রধান প্রতিবেদক || দৈনিক বাহাদুর
  • প্রকাশিত সময় : জুন, ২৩, ২০২৪, ১০:১১ অপরাহ্ণ




গৌরীপুরে আ’লীগের সভাপতি ও সম্পাদকের দ্বন্দ্ব প্লাটিনামজয়ন্তীতে পৃথক কর্মসূচি!

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপি এমপি ও সাধারণ সম্পাদক উপজেলা পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান সোমনাথ সাহার দ্বন্দ্বে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর প্লাটিনাম জয়ন্তীতে পৃথক কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে রোববার (২৩ জুন/২০২৪) পালিত হয়েছে।

দিনের কর্মসূচীর শুরুতেই উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপি এমপি’র নেতৃত্বে দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে জাতীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা উত্তোলন, জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে ও বিজয়’৭১-এ শহীদ বেদীতে শ্রদ্ধার্র্ঘ্য অর্পণ, বেলুন উড়িয়ে প্লাটিনাম জয়ন্তীর কর্মসূচীর উদ্বোধন ঘোষণা ও বর্ণিল শোভাযাত্রা শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। শোভাযাত্রায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ডা. হেলাল উদ্দিন আহাম্মেদ, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমাÐার আব্দুর রহিম, গৌরীপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ রফিকুল ইসলাম, উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মো. মোফাজ্জল হোসেন খান, আলী আহাম্মদ খান পাঠান সেলভীসহ দলীয় নেতৃবৃন্দ অংশ নেন। এরপরে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপি এমপি’র সভাপতিত্বে গৌরীপুর মহিলা ডিগ্রী কলেজ অডিটোরিয়ামে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। প্লাটিনাম জয়ন্তীতে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে শুভেচ্ছা জানান উপজেলা জাতীয়পার্টির সাধারণ সম্পাদক আব্দুল গফুর, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির সাধারণ সম্পাদক হারুন আল বারী।

অপর দিকে উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান সোমনাথ সাহার নেতৃত্বে দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে ধানমহালস্থ দলীয় কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করেন। এরপরে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। শোভাযাত্রায় গৌরীপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ রফিকুল ইসলাম, সাবেক মেয়র মো. শফিকুল ইসলাম হবি, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান সোহেল রানাসহ দলীয় নেতৃবৃন্দ অংশ নেন। এরপরে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয়।

জানা যায়, ১৯বছর পর ২০২২সনের ১৪ সেপ্টেম্বর উপজেলা আ’লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় গৌরীপুর আরকে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে। জেলা কমিটির অনুমোদনে কেন্দ্রীয় আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল নতুন কমিটির সভাপতি পদে এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপি ও সম্পাদক পদে সোমনাথ সাহার নাম ঘোষণা করেন। এরপরে ১বছর ৯মাস ৯দিন অতিক্রম হলেও হয়নি পূর্ণাঙ্গ কমিটি।
ঘোষণার পরপরেই দু’জন এমপি নির্বাচন নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়েন। দলীয় কর্মসূচী পালনে সাংগঠনিক কার্যক্রম নিয়ে প্রকাশ্য বিরোধেও জড়িয়ে যান এ দু’জন। সোমনাথ সাহাকে একাধিকবার কল দিলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

তবে বিগত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এমপি পদে নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন পান উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপি। মনোনয়নবঞ্চিত হলেও কেন্দ্রীয় নিষোধাজ্ঞা না থাকায় সাধারণ সম্পাদক সোমনাথ সাহাও ট্রাক প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্ব›িদ্বতা করেন। এ নির্বাচনে নৌকা প্রতীক পায় ৫৪হাজার ৪৯১ ভোট আর তার নিকটতম প্রতিদ্ব›িদ্ব ট্রাক প্রতীকের প্রার্থী পান ৫২হাজার ৫৬৬ ভোট। ১হাজার ৯২৫ ভোট নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপি বিজয়ী হন। এমপিতে হেরে গেলেও উপজেলা নির্বাচনী বিজয়ী হন ট্রাক প্রতীকে সোমনাথ সাহা এবার আনারস প্রতীক নিয়ে। ২২ মে অনুষ্ঠিত ৫মধাপের অনুষ্ঠিত গৌরীপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আনারস প্রতীকের প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সোমনাথ সাহা ৫৪ হাজার ৯২১ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। তার নিকটতম প্রতিদ্ব›িদ্ব দোয়াত-কলম প্রতীকের প্রার্থী উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. মোফাজ্জল হোসেন খান পেয়েছেন ৪৮হাজার ৫৯ভোট। সোমনাথ সাহা বিজয়ের পথে থাকা অবস্থাতেও বেসরকারি ফলাফল ঘোষণা আগেই সহকারী রির্টানিং অফিসারের ফলাফল ঘোষণা কক্ষে উপস্থিত হয়ে এমপি এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপি ফুলেল শুভেচ্ছায় সোমনাথ সাহাকে অগ্রিম অভিনন্দিত করেন। আবারও বিজয়ী হওয়ার পরে সোমনাথ সাহাও এমপি’র বাসভবনে গিয়ে এডভোকেট নিলুফার আনজুম পপিকে শুভেচ্ছা জানান।
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সেসব ছবি নিয়ে নেটিজেনরাও অভিবাদন ও উন্নয়নের সম্পর্কের সোপান হিসাবে আখ্যায়িত করেন। ইতোমধ্যে উপজেলা চেয়ারম্যান হিসাবে উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক সোমনাথ সাহা শপথ গ্রহণ করেছেন। তবে শপথ অনুষ্ঠান শেষে সোমনাথ সাহা আয়োজিত সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন সাবেক এমপি বীর মুক্তিযোদ্ধা নাজিম উদ্দিন আহমেদ। শেখ হাসিনা’র নির্দেশনায় ভিশন বাস্তবায়ন ও উন্নয়নে দু’জনের পথচলা এখনও শুরু হয়নি; জনগণের কাঙ্খিত উন্নয়নে একতাবদ্ধ থাকবেন এটা কর্মী ও সমর্থকদেরও প্রত্যাশা।

এদিকে কমিটি ঘোষণার কিছুদিন যেতে না যেতেই সভাপতি ও সম্পাদকের মাঝে দ্বন্ধ ও মতানৈক্যের বিষয়টি চাউড় হতে থাকে। তবে দলীয় সাংগঠনিক ও জাতীয় কর্মসূচি পালনে দু’জনে একই মঞ্চে। বিএনপি-জামাতের বিরুদ্ধে আন্দোলন-সংগ্রামের প্রতিটি প্রোগ্রামে দু’জন একই ব্যানারে হেঁটেছেন। তবে দু’জনেই এমপি মনোনয়ন ও এমপি পরবর্তী কর্মসূচীতে দু’জনেই পৃথক বলয় সৃষ্টি করে আলাদা কর্মসূচী পালন করেন। বিশেষ করে বিগত শোকের মাস আগস্টে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নিজস্ব বলয় নিয়ে পৃথক কর্মসূচি করায় বিভাজনটি প্রকাশ্য রূপ নেয়। তবে ব্যক্তিগত আয়োজনে নিজস্ব স্বকীয়তা বজায় রাখলেও উপজেলা আওয়ামী লীগের ব্যানারে অনুষ্ঠিত জাতীয় শোক দিবস, ১৭আগস্ট সিরিজ বোমা হামলা ও ২১আগস্ট গ্রেনেড হামলার প্রতিবাদ সমাবেশ করেছেন এক ব্যানারে এক মঞ্চে। তবে বিগত অমর একুশে উদযাপনে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে পৃথকভাবে পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয় শহিদ মিনারে।
এ উপজেলা শাখার সর্বশেষ কাউন্সিলারদের ভোটে সম্মেলন হয় ২০০৩সালের ২৮ সেপ্টেম্বর। সেই সম্মেলনে ১৭০ কাউন্সিলারের ভোটে সভাপতি পদে ডা. ক্যাপ্টেনব (অব.) মজিবুর রহমান ফকির এমপি নির্বাচিত হন। অপর প্রতিদ্ব›দ্বী তরুণ শিল্পপতি এম এ হান্নান পেয়েছিলেন ৬৯ ভোট। সাধারণ সম্পাদক পদে ৮৫ ভোট পেয়ে বিধু ভূষণ দাস নির্বাচিত হন। প্রতিদ্ব›িদ্ব প্রার্থী দেওয়ান কাঞ্চন খান পেয়েছিলেন ৬৬ ভোট, আব্দুল আউয়াল খান পাঠান ৪৩ ভোট, রঞ্জন সরকার ৩৫ ভোট ও কামাল পাশা মতি ৯ ভোট পেয়েছিলেন। ওই সম্মেলনে ২৪৬ জনের মধ্যে ২ জন অনুপস্থিত ছিলেন ও ৮টি ভোট বাতিল হয়েছিল।###




Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও খবর




অনলাইন জরিপ

জাতিসংঘের বিশেষ দূত এলিস ক্রুজ বলেছেন, বাংলাদেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির সুফল সব মানুষের কাছে পৌঁছাচ্ছে না। আপনিও কি তা-ই মনে করেন?

View Results

Loading ... Loading ...

পুরনো সংখ্যার নিউজ

রবি সোম মঙ্গল বু বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১৩
১৫১৬১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
৩০৩১