গৌরীপুরে দিনব্যাপী বর্ণিল পিঠা উৎসব

গৌরীপুর প্রতিনিধি :
ময়মনসিংহের গৌরীপুরে সাদেক মেমোরিয়া কিন্ডারগার্টেন স্কুলের উদ্যোগে বৃহস্পতিবার (২৩ জানুয়ারি) স্কুল প্রাঙ্গণে বর্ণিল পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত হয়। বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের হাতে তৈরী ১শ ৭৬জাতের বাহারী পিঠা স্থান পায় ৭টি স্টলে। বিদ্যালয়ের ৫৪জন শিক্ষার্থীর হাতের নির্পুণ কারুকার্য্যে উঠে আসে বাংলার পিঠা-পুলির ঐতিহ্য। পিঠার নকশায় আসে ইতিহাসের অংশ ১৯৬৯’র গণঅভ্যূত্থান, ৫২’র ভাষা আন্দোলন, ৬৬সালের ৬দফা, ৭মার্চের ভাষণ, ৭১’র মুক্তিযুদ্ধ চিত্রায়ন। বাদ যায়নি সমাজের গ্রামবাংলার চিত্র, শহরের পরিবেশও। এ যেন শুধু পিঠা উৎসব নয়, মুজিববর্ষের আগমনী বার্তা।
উৎসবের উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার সেঁজুতি ধর। তিনি বলেন, চমৎকার আয়োজন, আমাকে মুগ্ধ করেছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মোফাজ্জল হোসেন খান বলেন, পিঠা খেয়েছি, ইতিহাস জেনেছি, শিশুদের মেধা বিকশিত করার প্রয়াস আমাকে অভিভূত করেছে। এই আনন্দ-উল্লাস প্রত্যেকটি শিশুর মনকে নতুন স্বপ্ন দেখাবে।
অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন প্রতিষ্ঠানের পরিচালক পৌর কাউন্সিলার মো. আব্দুল কাদির। বিশেষ অতিথির বক্তব্য উপজেলা শিক্ষা অফিসার মনিকা পারভীন, জনতা ব্যাংকের ব্যবস্থাপক ফয়েজ আহাম্মদ খান রাসেল, নুরুল আমিন খান উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক প্রধান শিক্ষক আব্দুল হাই খান পাঠান, গৌরীপুর পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলার আবুল কাসেম, জাতীয় পাটির সিনিয়র সহসভাপতি আব্দুল গফুর, শহীদ হারুন স্মৃতি সংসদের সহসভাপতি মুক্তিযোদ্ধা তোফাজ্জল হোসেন, জাগরনী পৌর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শংকর চন্দ্র চাকী, চান্দের সাটিয়ার প্রধান শিক্ষক নাসরিন বিনতে ইসলাম, মহিলা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মমতাজ বেগম প্রমুখ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রধান শিক্ষক মোছা. শামছুন্নাহার রীনা।